সম্মাননা পেলেন আরজে সাইমুর রহমান

সম্মাননা পেলেন আরজে সাইমুর রহমান

অনলাইন ডেস্ক :

৩ নভেম্বর শুক্রবার বিকালে হোটেল সোনারগাঁও ইন্টারন্যাশনাল এর পদ্মা হলে শেরে বাংলা এ কে ফজলুল হক গবেষণা পরিষদের উদ্যোগে শেরে বাংলার ১৫০তম জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা ও গুণীজন সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। উক্ত অনুষ্ঠানে সাংবাদিকতায় বিশেষ অবদানের জন্য সম্মাননা পেলেন রেডিও স্বদেশ ও স্বদেশ নিউজ টুয়েন্টি ফোর এর প্রতিষ্ঠাতা আরজে সাইমুর। এর আগে আরজে সাইমুর অসংখ্যবার পুরস্কৃত হয়েছেন। আরজে সাইমুর আন্তর্জাতিক মিডিয়া গ্রুপ কোম্পানি দোয়া মিডিয়া’কে জানান, এই পুরস্কারটি পেয়ে অনেক ভাল লাগছে। যেকোন পুরস্কারই কাজের প্রতি অনুপ্রেরণা যোগায়৷ আশা করি আমার কর্মগুণে সামনে আরও ভাল কিছু সবাইকে উপহার দিতে পারবো। সবাইকে অসংখ্য ধন্যবাদ জানাই। ধন্যবাদ জানাই আমার মা,বাবা, আত্মীয়-স্বজন, শুভাকাঙ্ক্ষী ও আমার ফ্যান-ফলোয়ার সবাইকে। আল্লাহর প্রতি অশেষ শুকরিয়া।

শেরে বাংলা এ কে ফজলুল হক গবেষণা পরিষদের উদ্যোগে এই অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন উক্ত সংগঠনের উপদেষ্টা ইকবাল মাহমুদ। উক্ত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ড. মহিউদ্দিন খান আলমগীর এমপি। উদ্বোধক হিসেবে বক্তব্য রাখেন আর.এ.এম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী এমপি। প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ প্রেস কাউন্সিলের চেয়ারম্যান বিচারপতি মোঃ নিজামুল হক নাসিম, বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা কাজী রিয়াজুল হক, কৃষি ব্যাংকের সাবেক চেয়ারম্যান ইসমাইল হোসেন।

উক্ত অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন শেরে বাংলার দৌহিত্র সাবেক তথ্যসচিব সৈয়দ মার্গুব মোর্শেদ এবং ফাইয়াজুল হক রাজু, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা মন্ডলির সদস্য ইঞ্জিনিয়ার ইকবাল হোসেন তাপস, আনন্দ গ্রুপের চেয়ারম্যান ড.আব্দুল্লাহেল বাকী, লালন শিল্পী ফরিদা পারভীন, দেশবরেণ্য কণ্ঠশিল্পী ফাতেমা তুজ জোহরা, চিত্রনায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা মাসুদ পারভেজ সোহেল রানা, কন্ঠশিল্পী সামিনা চৌধুরী, মনির খান, অভিনেত্রী ডলি জুহুর, নায়ক ফেরদৌস আহমেদ, নায়িকা চম্পা, গুনী কন্ঠশিল্পী সৈয়দ আব্দুল হাদী, অভিনেত্রী তানজীন তিশা’সহ আরও অনেকে।

উক্ত অনুষ্ঠানে আলোচনা শেষে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশিত হয়। অনুষ্ঠানের মিডিয়া পার্টনার ছিল এটিএন বাংলা, স্বদেশ নিউজ টুয়েন্টি ফোর ডটকম, রেডিও স্বদেশ এবং দিয়া আহসান ফটোগ্রাফি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *